কৃষিগুচ্ছের ভর্তির আবেদন শুরু

বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি

কৃষিগুচ্ছের ভর্তি

কৃষিবিজ্ঞান বিষয়ে ডিগ্রি প্রদানকারী আটটি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে গুচ্ছ পদ্ধতিতে ২০২১-২০২২ শিক্ষাবর্ষে ১ম বর্ষ স্নাতক শ্রেণির ভর্তি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে। এ বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে ভর্তির জন্য আজ থেকে আবেদন করতে পারবেন শিক্ষার্থীরা। ১৬ আগস্ট পর্যন্ত আবেদন করা যাবে। ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে ১০ সেপ্টেম্বর।  
 
শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি ও কেন্দ্রীয় ভর্তি কমিটির সভাপতি মো. শহীদুর রশীদ ভূঁইয়া স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে ভর্তি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে। 

আটটি সরকারি কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে মোট আসন সংখ্যা ৩ হাজার ৫৩৯। এরমধ্যে বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে আসন সংখ্যা ১১১৬, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে ৩৬০, শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে ৭০৪, চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি অ্যান্ড অ্যানিমেল সায়েন্সেস বিশ্ববিদ্যালয়ে ২৪৫, সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে ৪৩১, খুলনা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে ১৫০, পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে ৪৪৩ এবং হবিগঞ্জ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে আসন সংখ্যা ৯০। 

বিজ্ঞপ্তিতে আবেদনের ন্যূনতম যোগ্যতার বিষয়ে বলা হয়েছে- ২০১৭/২০১৮/২০১৯ সালে এসএসসি/সমমান এবং ২০২০/২০২১ সালে এইচএসসি/সমমানের পরীক্ষায় যারা বিজ্ঞান বিভাগ থেকে জীববিজ্ঞান, রসায়ন, পদার্থবিজ্ঞান, গণিত বিষয়সহ উত্তীর্ণ হয়েছেন, কেবল তারাই আবেদন করতে পারবেন।

আবেদনকারীর এসএসসি/সমমান এবং এইচএসসি/সমমানের পরীক্ষায় উভয় ক্ষেত্রে প্রতিটিতে চতুর্থ বিষয় ব্যতীত ন্যূনতম জিপিএ-৪. ০০ এবং সর্বমোট ন্যূনতম জিপিএ-৮. ৫০ থাকতে হবে।       

জিসিই ‘ও’ এবং ‘এ’ লেভেল পাসকৃত প্রার্থীর ক্ষেত্রে ‘ও’ লেভেল পরীক্ষায় অন্তত ৫টি বিষয়ে এবং ‘এ’ লেভেল পরীক্ষায় বিজ্ঞানের অন্তত ২টি বিষয়ে উত্তীর্ণ হতে হবে। উভয় পরীক্ষার প্রতিটিতে ন্যূনতম জিপিএ-৪.০০ এবং সর্বমোট জিপিএ-৮.৫০ থাকতে হবে। এ ক্ষেত্রে A ও B গ্রেডের জন্য যথাক্রমে ৫ ও ৪ জিপিএ গণনা করা হবে। 

ভর্তির আবেদনের জন্য ফি নির্ধারণ করা হয়েছে ১ হাজার ২শ টাকা।  

১০ সেপ্টেম্বর সাতটি কেন্দ্রে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। এগুলো হলো- বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, ময়মনসিংহ; বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, গাজীপুর; শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, ঢাকা; পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, পটুয়াখালী; চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি ও অ্যানিমেল সায়েন্সেস বিশ্ববিদ্যালয়, চট্টগ্রাম; সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, সিলেট এবং খুলনা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, খুলনার অধীনে একযোগে অনুষ্ঠিত হবে। পরীক্ষাকেন্দ্রের তালিকা অনুযায়ী, আবেদনকারীকে ১ থেকে ৭ পর্যন্ত পরীক্ষাকেন্দ্রের পছন্দক্রম উল্লেখ করতে হবে। আবেদনকারীর পছন্দক্রম অনুযায়ী, পরীক্ষাকেন্দ্রের আসন শূন্য থাকা সাপেক্ষে অগ্রাধিকার ভিত্তিতে পরীক্ষাকেন্দ্র নির্ধারণ করা হবে। 

ভর্তি সংক্রান্ত যাবতীয় তথ্য acas.edu.bd ওয়েবসাইটে পাওয়া যাবেও উল্লেখ করা হয়েছে বিজ্ঞপ্তিতে। 

সুত্রঃ ঢাকা পোস্ট

Leave a Comment